Home / বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি / মোবাইল ফোনের কি প্যাডে এবিসিডি এলোমেলো কেন?

মোবাইল ফোনের কি প্যাডে এবিসিডি এলোমেলো কেন?

বর্তমান আধুনিক তথ্য-প্রযুক্তির এই যুগে দিন যত যাচ্ছে মানুষের কাজকর্ম ও কথাগুলো ততটাই যেন হাতের আঙুলের নিয়ন্ত্রণে চলে আসছে। ডেস্কটপ কম্পিউটার, ল্যাপটপ কিংবা স্মার্টফোন দিয়ে বার বার আঙুলের সাহায্যে সেই কথাগুলো কখনো চ্যাট বা কখনো প্রয়োজনীয় ই-মেইল হয়ে পৌঁছে যাচ্ছে অপর প্রান্তে থাকা লোকটির কাছে। একটা সময় ছিল যখন টাইপ করা মানেই ছিল স্কুল, কলেজের ছাত্র-ছাত্রীদের অনুশীলন আর অফিস আদালত চত্বরে কোনো প্রয়োজনীয় গুরুত্বপূর্ণ কাগজ টাইপ করা। কিন্তু বর্তমান এই উন্নত তথ্য-প্রযুক্তির যুগে আগেকার দিনের সেই চিত্র পাল্টে গেছে। খবর এবেলার।

ব্যস্ততা কারণে বা বাসের ভিড়ে অনেকটা নাজেহাল হয়েই হোক কিংবা রেস্টুরেন্টে খেতে বসে, সকলেই ব্যস্ত কিছু না কিছু টাইপ করতে। কিন্তু কখনো কি ভেবেছেন, সারাদিন এতো বার যে কী বোর্ডটি দেখেন, তা ভার্চুয়াল হোক বা রিয়েল, কেন ইংরেজি অক্ষর ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকে। অর্থাৎ ইংরেজি বর্ণমালার ক্রম অনুসারে এ, বি, সি, ডি এভাবে থাকে না। আপনি জানেন কি এর পিছনে রয়েছে প্রায় দেড়শো বছরের পুরনো ইতিহাস। কি সেই ইতিহাস সবার মনে এমন প্রশ্ন আসাটাই স্বাভাবিক।

ভারতীয় এক গণমাধ্যমে প্রকাশিত প্রতিবেদন থেকে জানা গেছে, ১৮৬৮ সালে প্রথম কি বোর্ড তৈরি হয়। ক্রিস্টোফার লাথাম স্কোলস নামের একজন ভদ্রলোক প্রথম কি বোর্ড তৈরি করেন। তার তৈরি সেই প্রথম কি বোর্ডে বর্ণমালা অনুযায়ীই কিগুলিকে সাজিয়েছিলেন। কিন্তু পরবর্তীতে দেখা গেল এতে টাইপ করতে বিস্তর সমস্যা হচ্ছে। ভুল অক্ষরে আঙুল পড়ে যাচ্ছে, কি হয়ে যাচ্ছে জ্যাম! এখানেই তৈরি হয় সমস্যা।

আর বিষয়টিকে নিয়ে বেশ সমস্যায় পড়ে যান ক্রিস্টোফার। এরপর ক্রিস্টোফার পরবর্তী পাঁচ বছর ধরে নানা রকম পরীক্ষা-নিরীক্ষা শেষে ১৮৭৩ সালে তিনি তৈরি করলেন নতুন কি বোর্ড।

ক্রিস্টোফার লাথাম স্কোলস এবার তার তৈরি নতুন কি বোর্ডে যা করলেন, সেটি হলো- সব থেকে বেশি ব্যবহৃত কিগুলিকে তিনি রাখলেন আগে। তিনি হিসেব করে দেখলেন কিউ, ডবলিউ, ই, আর, টি, ওয়াই- এই অক্ষরগুলিই সব থেকে বেশি ব্যবহৃত হয়। এ কারণে তিনি এই গুলিকেই তার নতুন কি বোর্ডের শুরুতে রাখলেন।

আর সেই থেকে চলে আসছে কি বোর্ডের এই অক্ষর বিন্যাস। কিন্তু মাঝখানে কেটে গিয়েছে প্রায় দেড়শো। টাইপ রাইটার থেকে অত্যাধুনিক অ্যান্ড্রয়েড ফোন প্রাসঙ্গিক থেকে গিয়েছেন ক্রিস্টোফার লাথাম স্কোলস।

এটাই হলো- ক্রিস্টোফার লাথাম স্কোলসের তৈরি কি বোর্ডের অক্ষর বিন্যাস কাহিনী।

Check Also

ফেসবুকের বিরুদ্ধে মামলা!

ফেসবুকের বিরুদ্ধে মামলা করেছেন কম্বোডিয়ার বিরোধী দলের নেতা স্যাম রেইনসির আইনজীবী রিচার্ড রোজার। যুক্তরাষ্ট্রের ফেডারেল …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *