Home / Uncategorized / মেয়েকে দেওয়া মায়ের পরামর্শ ফেসবুকে ভাইরাল

মেয়েকে দেওয়া মায়ের পরামর্শ ফেসবুকে ভাইরাল

একজন মায়ের মেয়েকে দেওয়া চমৎকার কিছু পরামর্শ সামাজিক মাধ্যমে বেশ আলোচনার জন্ম দিয়েছে। মা টনি হ্যামার তার মেয়েকে উদ্দেশ্য করে কিছু পরামর্শ ও মেয়ের ছবি গত ২২ সেপ্টেম্বর তার ফেসবুকে পোষ্ট করেন। যাতে ইতোমধ্যে ৮,৪০০ টি প্রতিক্রিয়া পড়েছে, ৬,৩৩৩টি শেয়ার হয়েছে এবং ৫৪৪ জন মন্তব্য করেছেন।

টনি হ্যামার পোষ্টে তার মেয়েকে যেসব পরামর্শ দিয়েছেন-

১) অকারণে তোমাকে কেউ কিছু বললে তাকে ক্ষমা করো না।

২) কোনো ভুল বা অন্যায় করলে দুঃখিত বলতে ভুলবে না। কারণ তোমার চিন্তা আর অনুভূতিই অন্যের কাছ থেকে সম্মান আদায় করে।

৩) তুমি কার সাথে যাবে বা যাবে না এটা তোমার ব্যপার। এটার কারণ ব্যাখ্যা করার প্রয়োজন নেই। যেতে না চাইলে সুন্দরভাবে না করে ধন্যবাদ বলে দিতে পারো।

৪) তোমার ক্ষুধা লাগলে তুমি যে কোনো জায়গায়তেই খেতে পারো, এতে কে কি মনে করল তা দেখার দরকার নেই। কারণ তুমি ক্ষুধার্ত, আর তার জন্য তোমার যতটুকু খাবারের প্রযোজন তুমি খাবে। হতে পারে সেটা পিৎজা বা সালাদ। লজ্জার কিছু নেই।

৫) তোমার চুল কতটা বড় হবে বা ছোট হবে তার একান্তই তোমার ব্যাপার। কারো কথা শুনে বা কারো ইচ্ছায় চুল বড় করার প্রয়োজন নেই।

৬) যে পোশাকে তুমি স্বাচ্ছ্যন্দবোধ কর তাই পরবে।

৭) নিজের প্রয়োজনে বা কাজে নিজেকেই বের হতে হবে। কারণ ঘরের লোকের সবসময় সময় নাও থাকতে পারে। নিজের কাজ নিজে করাটা একটা বড় অভিজ্ঞতা।

৮) কান্না পেলে কাঁদবে। কান্না আটকানোর কিছু নেই। কান্না এক ধরনের অনুভূতি প্রকাশ করে তোমাকে হালকা করবে। এটাকে দুর্বলতা ভাবার প্রয়োজন নেই।

৯) হাসি পেলে হাসবে তবে অকারণে বেশি হাসবে না, তাতে মানুষ খারাপ বলবে।

১০) নিজের মজার মজার ঘটনার জন্য হাসবে, এত ভয় পাবার কিছু নেই।

১১) কোনো সিদ্ধান্তে ভদ্র আর নম্রভাবে হ্যাঁ বা না বলো, কারন জীবনটা তোমার।

১২) নিজের মতামত গোপন করবে না। কথা বলতে হবে এবং জোরে কথা বলবে। কারণ তোমার কথাও শুনতে হবে আমাদের।

এমন চমৎকার পোষ্টটিতে অনেকেই অনেক ধরনের মন্তব্য করেছেন তা কিছু এখানে তুলে ধরা হলো-

১) ডুবলি অ্যামান ডা লিখেছেন- খুব সুন্দর কথাগুলো এবং চরম সত্য। তিনি লিখেছনে, টনি তুমি যদি কিছু মনে না করো তবে আমি পোষ্ট শেয়ার করতে চাই..।

২) লিন্ডা টেইলর লিখেছেন- এই লিস্টটাতে একটি নেতিবাচক দৃষ্টিকোণ রয়েছে, যা হচ্ছে – না, কি করবেন না .. যদিও এটি ইতিবাচক থেকে শিক্ষা মূলক। এই জন্য না এর কোনো প্রয়োজন নেই। আমার ছেলেকে শেখানোর জন্য আমি তালিকাটি ভালোবাসি (যা বেশিরভাগই কাজ করে) এবং আমি তাদের সবাইকে বলেছিলাম যে আমি আমার মেয়েদের পাশাপাশি আমার ছেলেমেয়েদেরও শিক্ষা দিই। কনফিডেন্স, অখণ্ডতা, বিনয়ও উদারতা।

৩) আলেক্সিস ব্র্যাচ লিখেছেন- যখন বন্ধুরা আমাকে হাসি দিতে বলেছে তখন আমি হেসেছি আর বলেছি আর মনে মনে বলেছি- আমি একটি স্মার্ট গাধা, কিন্তু সত্য হচ্ছে আমি কাউকেই কিছু বলতে পারি নাই।

এত এত মন্তব্যের মধ্যে টনি হ্যামার কিছু কিছু মন্তব্যের উত্তর দিয়েছেন আবার কাউকে কাউকে ধন্যবাদও দিয়েছেন।

Check Also

মাশরাফি আগেই জানতেন সাকিব আজ ব্যাট করতে পারবে না

আজ শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ৪২তম ওভারে ফিল্ডিং করতে যেয়ে বাঁহাতের আঙুলে চোট পেয়েছেন সাকিব।  মাঠ ছেড়ে …